Skip to main content

Posts

Showing posts from February 5, 2017



একটি শিকারকাহিনি : সর্বজিৎ ঘোষ

একটি শিকারকাহিনি
মলয় নামের সাদা বেড়ালটিকে যখন বসে থাকতে প্রথম দ্যাখে অনিমেষ, তখন সে ছিল একটা অটোতে।
এখানে এসে প্রথমবারের মতো গল্পটা একটা লাল ঘরে ঢুকে যায়। লাল ঘরের আলো ছিল নরম লাল, আসলে লাল ঘরটা ছিল গোলাপের দুই পাঁপড়ির ভিতর গভীরে কোন এক বিন্দুতে আলম্বিত। সেই লাল ঘরের মেঝেও হওয়া উচিৎ লাল, কিন্তু অনিমেষ লাল মেঝের ঘর শেষ দেখেছিল তার মামাবাড়িতে, দোতলার পুব দিকের ঘরটায়। সেই লাল ঘরেই মামা মামির ফুলশয্যে হয়, অনিমেষ তখন বছর বারোর। মামির ছেলে মেয়ে হয়নি, মামি ছিল ভীষণ মোটা, মামি দুপুরবেলা একা একা ভুল বকতে বকতে কখনো পড়ে যেত সেই লাল ঘরের মেঝে ফুঁড়ে, গোলাপের দুই পাঁপড়ির মাঝের ঘরটায় এসে পড়তো, তার পর আরো আরো গভীরে, ঠান্ডা বেরঙ অন্ধকারে ভেসে পড়তো, যেন নীচ থেকে লক্ষ লক্ষ হাত মামিকে ম্যাজিক করে হাওয়ায় ভাসিয়ে রাখছে, ম্যাজিশিয়ানদের হাত অল্প অল্প নড়ছে, ভীষণ লাল একটা কিছু ঢেউয়ের মতো লকলক করছে চারদিকে ঘিরে। মামা রাতে অফিস থেকে ফিরে মামিকে খুঁজে পেত না, চিলছাদে গিয়ে খিদে পেটে ঘুমিয়ে পড়তো। মামির পোষা দুটো বেড়াল ছিল, যাদের একটা ছিল সাদার মধ্যে বাদামী ছোপছোপ। সেটা ছিল খুব রোগা, মানুষ হলে নিমাই বলে আওয়াজ খেতো এমন …
Like us on Facebook
Follow us on Twitter
Recommend us on Google Plus
Subscribe me on RSS