Jyotirmoy Shishu

Jyotirmoy Shishu

Deep Sekhar

দুই দেশের প্রেমের কবিতা

মনিকা পেরেজ পিনো আমি ভারাদেরোর সমুদ্র সৈকতে আমার তালুর শুকনো রক্ত ধুয়ে নেবো তুমি আমার পিঠে সাবান ঘষে দেবে?
মনিকা পেরেজ পিনো তোমার গুয়ারদাভালাকার সাদা সমুদ্রতটের মতো ঊরুতে শুয়ে পাত্রাগাস সিগার পোড়াব, তুমি আমাকে শোনাবে আমার প্রিয় কানসিওন দে কুনা?
মনিকা পেরেজ পিনো আমি জানি যে সমস্ত বই আগুনে পুড়েছিল তাঁদের দিয়ে ওরা তুলে দিয়েছিল মানুষের মুখে তামাক, এভাবে জটিল শীতে তাঁদের মুনাফা হয়েছিল
আমি তুমি চাবুকা গ্রান্ডার কবিতা পড়ে দিনের পর দিন ভালো থেকেছি। উষ্ণ নিরাপত্তা খুঁজে দিয়েছি আমাদের কাঁঠাল-পাতার মতো নিস্পাপ সন্তানদের
আমি জানি প্রতি রাতে বাইরে ধর্ষকের তীব্র বোমার চিৎকারে আমরা প্রার্থনা করেছিলাম একদিন যুদ্ধ থেমে যাবে
মনিকা আজ এই বদ্ধ গুদামে বসে আমার চুলে লেগে যাচ্ছে নোনা জল। আমি তোমিতা
কাঠবাদামের মতো মুখের ছোঁয়ায় শুনতে পাচ্ছি - আমাদের সন্তানের হাতে বন্দুক নয়, উঠেছে প্রেমের নরম আদর মাখা পাকা আম। মনিকা, আমি ভুল নইত?


গরম বন্দুকের নলের ভেতর দিয়ে বেড়িয়ে আসে ক্ষমতার শুক্রাণু, ও পথ প্রেমিকের নয়
আমি ব্যাক্তিগত বারুদের গন্ধে পেয়েছি তোমার লিমার সমুদ্র সৈকতে পোড়া পিঠের বাদামী ঘ্রাণ
আমার কম্যুনিস্ট রক্ত মাখিয়ে দিয়েছি আপেল গাছে, নোটবুকে চারকোলে তোমার আবছা ছবি
আমার গর্ভের ভেতর যুদ্ধের ভ্রূণ কত বড় হয়েছে তা ঠিক জানি না, অসম্ভব ক্ষুধার্ত এই শীত
এই সেচুরা মরুভূমিতে হাওয়ার বেইমানি সইতে সইতে মনে পড়ছে কীভাবে তুমি আমার কবিতার ঝাঁকড়া চুলে আঙুল বুলোতে
আন্ড্রেয়া জানি আমি স্বামী তোমার স্তনের আয়নায় কেবল খিদে দেখেছে, আমি পেয়েছি পবিত্র ক্যান্টুটা ফুল বুকের আশ্রয়।




দীপ শেখর

Deep Sekhar